রবিবার, ১০ নভেম্বর, ২০১৩

কার্তিক সংখ্যা

গল্পপাঠের কার্তিক সংখ্যায় আরো কয়েকজন গল্পকারের সাক্ষাৎকার প্রকাশ করা হল। আগামীতে আরো সাক্ষাৎকার প্রকাশিত হবে। এ সংখ্যায় কয়েকটি গল্প এবং গল্পকার জ্যোতিপ্রকাশ দত্তের গল্প নিয়ে আরো দুটি লেখা রয়েছে।
----------------------------------------------------------------------------------------------------------------

এলিস মুনরোর দুটি গল্প


অসামান্য গল্পকার অমর মিত্র  এ পর্যন্ত গল্প লিখেছেন দেড় শতাধিক। শুরুর গল্পটি দিয়েই চমকে দিয়েছিলেন। একজন বাবা তার মেয়েকে নিয়ে যাচ্ছে। বাপবেটি গল্প করতে করতে যাচ্ছে। কিন্তু মেয়েটি জানে না বাবা তাকে বেঁচতে যাচ্ছে। এই রকম নাড়িতে টান মারা গল্পের যাদুকর তিনি। কিন্তু তাঁর গল্প কোনোটির সঙ্গে কোনোটির মিল নেই। অমর মিত্রের প্রতিটি গল্পই আলাদা।  প্রতিটি গল্পের আখ্যান নতুন। ভঙ্গী নতুন। তিনি এক কলমে  দুইবার লেখেন না। এটাই তার বৈশিষ্ট্য।
ঝিলমিল গল্পটি অমর মিত্রের আরেকটি বিস্ময়কর গল্প। ভাষায় নূপুরের ঝঙ্কার। কিন্তু রক্ত ঝরানো। বিস্ময়করভাবে তিনি লিখেছেন দেখা জগৎ আর অদেখা জগতের এক খণ্ড বিষাদের মর্মকথা। এ গল্প বাংলা ভাষায় একদম অন্যস্বর। ঝিলমিল গল্পটি পড়তে এখানে ক্লিক করুন>>

পড়ার জন্য যে কোনো সাক্ষাৎকারের উপরে ক্লিক করুন
সাক্ষাৎকার ১. অমর মিত্র।    সাক্ষাৎকার .কামরুজ্জামান জাহাঙ্গীর।      সাক্ষাৎকার স্বকৃত নোমান
সাক্ষাৎকার .রূপঙ্কর সরকার।  সাক্ষাৎকার ৫.সাগুফতা শারমী তানিয়া। সাক্ষাৎকার ৬.মেহেদী উল্লাহ।  সাক্ষাৎকার ৭.অর্ক চট্টোপাধ্যায়।  সাক্ষাৎকার ৮.রেজা ঘটক।          সাক্ষাৎকার ৯. মুক্তি মণ্ডল। 
সাক্ষাৎকার ১০. মুজিব ইরম।      সাক্ষাৎকার ১১. অঞ্জন আচার্য।     সাক্ষাৎকার ১২.জাকির তালুকদার
সাক্ষাৎকার ১৩.পাপড়ি রহমান ।  সাক্ষাৎকার ১৪. অনিন্দ্য আসিফসাক্ষাৎকার ১৫.নীহারুল ইসলাম। 
সাক্ষাৎকার ১৬. নাহার মনিকা।    সাক্ষাৎকার ১৭.শমীক ঘোষ।      সাক্ষাৎকার ১৮. শাহনাজ মুন্নী

----------------------------------------------------------------------------------------------------------------
জাকির তালুকদারের গল্প
অন্তরে ও অন্তরীক্ষ


জাকির তালুকদার এসময়ের একজন গুরুত্বপূর্ণ গল্পকার। তিনি লেখেন অভিজ্ঞতা থেকে। এবং এই অভিজ্ঞতার জন্য তাকে গ্রামে যেতে হয়নি। তিনি গ্রামেরই মানুষ। এর সঙ্গে  মেল বন্ধন ঘটেছে তাঁর  বহুমূখী পড়াশুনার। তিনি শুরু থেকে সিরিয়াস গল্পকার। কোনো অর্থেই সখ করে লেখেন না। ফলে তাঁর পাঠকও তাঁর সঙ্গে হয়ে ওঠেন সিরিয়াস। সম্ভবত জাকির তালুকদারই সাহিত্যের সেই প্রাচীন বংশের নিঃশ্ব সন্তান যিনি সত্যি সত্যি লেখালেখির জন্য সব ছেড়েছেন। নিজেকে বাজী ধরেছেন। এবং  তাকে পড়া ছাড়া পাঠের পূণ্যি অসম্ভব।
গল্পের পাশাপাশি লিখছেন উপন্যাস ও প্রবন্ধ। প্রথম উপন্যাস কুরসিনামা। মুসলমানমঙ্গল উপন্যাসের মাধ্যমে পাঠকমহলে পরিচিতি পান। তার সর্বশেষ উপন্যাস পিতৃগণ সম্প্রতি জেমকন সাহিত্য পুরস্কারে ভূষিত হয়েছে গল্পটি পড়তে ক্লিক করুন>>

----------------------------------------------------------------------------------------------------------------

স্বকৃত নোমান 
২০০৮ সালে প্রকাশিত হয় তাঁর প্রথম উপন্যাস নাভি। এরপর প্রকাশিত হয় যথাক্রমে ‘ধুপকুশী’ (পরিবর্তিত নাম ‘বংশীয়াল’), ‘জলেস্বর’, ‘রাজনটী’ ও ‘হীরকডানা’। পত্রপত্রিকায় নিয়মিত গল্প লিখছেন। ইতিহাস, ইতিহাসের মানুষ, বিশাল বাংলার মিথ, লোকজীবন, লোকসংস্কৃতি, বঞ্চিত মানুষদের সুখ-দুঃখের পাঁচালি তাঁর গল্প-উপন্যাসে ভিন্ন রকমের মাত্রা নিয়ে উপস্থিত হয়। তাঁর উপন্যাসের ভাষা ও আঙ্গিক একেবারেই আলাদা, নিজস্ব। কথাসাহিত্যে তিনি এইচএসবিসি-কালি ও কলম পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন।”
আরো পড়তে এই লিঙ্কে ক্লিক করুন>> 
----------------------------------------------------------------------------------------------------------------
ব্যক্তিগত জীবনে রোহণ কুদ্দুস খুব বহুমুখী প্রতিভাসম্পন্ন মানুষ। কবি, গল্পকার, প্রকাশক, ওয়েব ডেভলোপার, সৃষ্টি পত্রিকার সম্পাদক। এবং পরিপাটিও বটে। রোহণের গল্প মানেই হল পরিপাটি নতুন কিছুর অভিজ্ঞতা নেওয়া। গল্পটি পড়তে ক্লিক করুন>>

----------------------------------------------------------------------------------------------------------------
মোজাফফর হোসেনের গল্প : জীবন যেখানে যেমন
কবি-গল্পকার-প্রবন্ধকার ও অনুবাদক মোজাফফর হোসেন লেখালেখিকে শখ করে গ্রহণ করেননি। জীবনের অংশ করে নিয়েছেন। তাঁর গল্পটি পড়তে ক্লিক করুন>>

----------------------------------------------------------------------------------------------------------------


আরো গল্প
শামসুজ্জামান হীরা ঃ একজন রজব আলী

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন